‘Corruption’ In Group D Recruitment In Schools, High Court Ordered To Stop Pay 542 People


কলকাতা: স্কুলে গ্রুপ ডি (Group D) নিয়োগে ‘দুর্নীতি’ (SSC Scam)। আদালতের (Highcourt) নজরে আরও ৫৪২। ৪ মে ২০১৯-র পর কমিশনের সুপারিশে পর্ষদ নিয়োগ করলে পদক্ষেপ নেওয়া হবে। নিয়োগের নথি খতিয়ে দেখে বেতন বন্ধ করতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। ৫৪২ জনের মধ্যে যাঁদের নিয়োগ, তাঁদের বেতন বন্ধের নির্দেশ। নিয়োগ মামলায় মধ্যশিক্ষা পর্ষদকে (WBSE) নির্দেশ দিল হাইকোর্টের (Kolkata Highcourt)। ডিভিশন বেঞ্চে (Division ) শুনানির পরে ফের নির্দেশ সিঙ্গল বেঞ্চের।

গতকাল জানা যায়, স্কুল সার্ভিস কমিশনের (School Service Commission) নিয়োগ-দুর্নীতি মামলায় আপাতত অনুসন্ধান শুরু করতে পারছে না সিবিআই। সিঙ্গল বেঞ্চের রায়ের ওপর তিন সপ্তাহের জন্য অন্তর্বর্তী স্থগিতাদেশ জারি করেছে হাইকোর্টের ডিভিশন বেঞ্চ (Kolkata Highcourt)। এর পাশাপাশি, হাইকোর্টের (Kolkata Highcourt) নির্দেশ, মধ্যশিক্ষ পর্ষদ ও স্কুল সার্ভিস কমিশনের তরফে সিবিআই-কে যে সমস্ত নথি হস্তান্তর করার কথা ছিল, তা হাইকোর্টের রেজিস্ট্রার জেনারেলের কাছে মুখবন্ধ খামে জমা দিতে হবে। সোমবার এই মামলার পরবর্তী শুনানি। 

এ দিন বিচারপতি হরিশ টন্ডন ও বিচারপতি রবীন্দ্রনাথ সামন্তর ডিভিশন বেঞ্চে রাজ্য সওয়াল করেন, রাজ্য পুলিশ থাকতে মামলার ভার সিবিআইকে দেওয়া ঠিক নয়। পুলিশ কাজ করতে না পারলে বিচার করে দেখা যেত। পুলিশের কাছে কোনও অভিযোগ দায়ের হয়নি। পুলিশ কাজ করেনি, এমন কোনও অভিযোগও নেই। তদন্ত করার কোনও আবেদন মামলাকারীরা করেননি। আদালতে জানায় রাজ্য।

কমিশনকে বিচারপতিরা প্রশ্ন করেন, আপনারা কি সিবিআই অনুসন্ধানের বিরুদ্ধে? কমিশন জানায়, সিঙ্গল বেঞ্চেই আপত্তি জানানো হয়। আদালত মনোনীত পুলিশের সর্বোচ্চ আধিকারিকদের দিয়ে তদন্তে তারা প্রস্তুত। আপনারা কী এখনও সিবিআই চাইছেন? মামলাকারীকে প্রশ্ন করেন বিচারপতি। আমরা এখনও সিবিআই তদন্তের পক্ষে, উত্তরে জানান মামলাকারীর আইনজীবী।

স্কুল সার্ভিস কমিশনের (SSC) মাধ্যমে স্কুলে গ্রুপ-ডি বা চতুর্থ শ্রেণির কর্মী নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগে সল্টলেকে কমিশনের দফতরের সামনে বিক্ষোভ দেখান বাম ছাত্র-যুবরা। বামেদের বিক্ষোভ মিছিল ঘিরে রণক্ষেত্রে পরিণত হল করুণাময়ী (Karunamayee) চত্বর। 

গতকাল গ্রুপ ডি (Group-D) নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগে এসএসসি ভবন (SSC Bhawan) অভিযান করেন বামেরা (CPM)। দুর্নীতিতে জড়িত আধিকারিকদের শাস্তি, শিক্ষামন্ত্রীর (Education Minister) পদত্যাগের দাবিতেই বুধবার বিকেলে করুণাময়ী থেকে এসএসসি দফতর অভিযান-এর ডাক দেয় বাম ছাত্র-যুবরা। জড়ো হন কর্মী-সমর্থকরা। 

সেই জমায়েত মিছিল করে কমিশনের দফতরের দিকে এগোনোর চেষ্টা করলেই করুণাময়ী মোড়ে তাঁদের আটকায় পুলিশ। বারবার পুলিশের ব্যারিকেড ভেঙে এগোনোর চেষ্টা করেন ডিওয়াইএফআই এর রাজ্য সম্পাদক মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায় (Minakshi Mukherjee)। পুলিশের সঙ্গে বচসা-ধস্তাধস্তিতে জড়ান SFI ও DYFI কর্মীরা। ব্যারিকেড ভেঙে এগোতে চাইলে পুলিশদের সঙ্গে বাম সমর্থকদের ধস্তাধস্তি শুরু হয়। এর পর মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায়-সহ বেশ কয়েকজনকে টেনে ভ্যানে তোলে পুলিশ। 

উল্লেখ্য, গ্রুপ ডি (Group-D) বিতর্কের মধ্যেই প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ (SSC)। ৪৭৪ জনের মেধা তালিকা প্রকাশ করেছে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ (SSC)। জানানো হয়েছে নিয়োগপত্র পাবেন প্রার্থীরা। আরও ৭৩৮ টি শূন্যপদ পূরণ করা হবে। জানাল প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ (SSC)।



Source link